২৪ নভেম্বর দিনটি যেন হয় ডেসটিনি ট্রাজেডির সমাপ্তির ইতিহাস!

২৪ নভেম্বর দিনটি যেন হয় ডেসটিনি ট্রাজেডির সমাপ্তির ইতিহাস!

বাংলাদেশ

২৪ নভেম্বর দিনটি যেন হয় ডেসটিনি ট্রাজেডির সমাপ্তির ইতিহাস!

অনেক ঘটনা মানুষকে নাড়া দেয়। আবার অনেক প্রাপ্তিতে কোটি মানুষের খুশির কান্না যেন স্মৃতি হয়ে থাকে মনের গহীনে। কেহ ভুলতে পারেন আবার কেহ বয়ে বেড়ান যন্ত্রনায় ক্ষতগুলো। ঠিক তেমনই ডেসটিনি পরিবারের জন্য ঐতিহাসিক একটি দিন ছিল ২০ জুলাই’ ২০১৬। এই দিনে শীর্ষ আদালতের একটি রায় ডেসটিনির ৪৫ লাখ পরিবারকে বাঁচার স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন।

সততা আর বিশ্বাস মানুষকে কতটা জনপ্রিয়তার শীর্ষে নিয়ে যায় সেদিন মর্মে মর্মে উপলব্দী করেছিলেন ডেসটিনি মুক্তি পাগল লাখ লাখ মানুষ। ডেসটিনির চলমান ট্রাজেডির ঘটনাবলি সবাই জানেন। জানেন, সরকারের দায়িত্বে নিয়োজিত বিভিন্ন সংস্থার কর্ণধররা। আর সুরাহ পাননা ডেসটিনির সাথে জড়িত ৪৫ লাখ হতভাগ্য পরিবারগুলি। মনে হয় এরা দেশের চতুর্থ শ্রেণীর নাগরিক। মানুষের জন্য আইন, না আইনের জন্য মানুষ একথা বেমালুম ভুলে গেছেন, দেশের কর্ণধাররা। মানবতা বঞ্চিত ডেসটিনি পরিবারের কান্না আর অমানবিক কষ্ট দেখতে পাননা না সরকার না বিরোধী দল, সুশিল সমাজ বা মানবাধিকার সংস্থা সমূহ।

গত ৭ বছর কেহ এগিয়ে আসেননি ডেসটিনির ৪৫ লাখ পরিবারের পাশে। আর বিনাবিচারে ৭৩ মাস ১২ দিন জেলে বন্দি আছেন ডেসটিনি-২০০০ লিঃ এর এমডি মোঃ রফিকুল আমীন ও চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসাইন। অথচ এরসাথে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে জড়িত দেশের প্রায় ৩ কোটি জনগন।
তাদের দাবি আগামী ২৪ নভেম্বর’১৮ শনিবার এই দিনটি যেন হয়; ডেসটিনি মুক্তির আন্দোলন বা ডেসটিনি ট্রাজেডির সমাপ্তির ইতিহাস।

স্টাফ রিপোর্ট: ॥ শেখ মোসলেহ উদ্দিন বাদশা ॥

Khulna Tv

Tagged

Leave a Reply